সুপ্তা চৌধুরীর “অপেক্ষা”

বিনোদন ডেস্কঃ

“অপেক্ষা!”
–সুপ্তা চৌধুরী–

অপেক্ষা!
শেষ প্রহরেও তোমারই অপেক্ষা!
এতো অপেক্ষা কেন আমার!
নাম বদলে আমার নামটা
অপেক্ষা রাখবো কিনা ভাবছি,
দিন শেষেও অপেক্ষা
রাত শেষেও তাই!
তবুও সময় হয়না তোমার একটুও?
করুণার জীবন ভীষণ তিতে জানোতো!
তবুও মৃত্যুর জন্যও অপেক্ষা!
একটা সময় পরে সূর্যাস্তের জন্যও
মনে হয়না অপেক্ষা করি।
মনে চায় না সূর্যোদয় হোক আবার!
সময়গুলো এমনভাবে থমকে কেন আছে!
তোমার আমার সময় এর গতিবেগ
এত দ্রুত কি করে ছিল!
মাথার মাঝে অসংখ্য প্রশ্ন!
তবুও নেই উত্তরের অপেক্ষা!
অপেক্ষা!
তুমি কেন এতো নিষ্ঠুর?
তোমার কি মরণ নেই?
আর কত? বলো!
তোমার যাবার আগে হয়তো
আমার শেষ নিঃশ্বাসটিও বিদায় নেবে!
অপেক্ষা!
তুমি কি যমদূত? নাকি কোন পরীক্ষা!

আরো পড়ুন