২১হাজার ভারতীয় কর্মী চাকরি হারালেন ভারতীয় নাগরিকদের চীনে প্রবেশ নিশেধ!

ইন্ডিয়া ওড়িশা প্রতিনিধিঃজয় কুমার রায়:-

চাকরি হারালেন ২১হাজার ভারতীয় নাগরিক বেজিংয়ের কমার্শিয়াল জাহাজে কাজ করা নাবিক ও জাহাজকর্মীদের প্রবেশাধিকার বন্ধ করল চিন। এর ফলে ভয়ঙ্কর সঙ্কটের মুখে পড়তে চলেছেন কয়েক হাজার কর্মী।

 

চিনের তরফে ‘বেসরকারি’ভাবে বলা হয়েছে ভারতীয় জাহাজের পাশাপাশি চিনা জাহাজে যদি কোনও ভারতীয় কর্মী থাকে তবে বন্দরেই প্রবেশ করতে পারবেন না তাঁরা। এমনই কঠোর বিধি জারি করল শি জিনপিং সরকার।

 

ইউনিয়নের প্রেসিডেন্ট অভিজিৎ সাংলে এক সংবাদমাধ্যমকে বলেন, “এটি চিনের নয়া চাল আমাদের নাবিকদের ছেঁটে ফেলে নিজেদের আধিপত্য কায়েম করার। আমরা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী এবং বিদেশ মন্ত্রককে চিঠি দিয়ে জানিয়েছি গোটা বিষয়টি। অবিলম্বে একটি ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্করকে চিঠি দিয়ে হস্তক্ষেপের আবেদন করেছি।”

এও জানান হয় যে চলতি বছরের শুরুতেও একই সমস্যার সম্মুখীন হয়েছিল নাবিকেরা। ভারতীয় কর্মী থাকা দুটি বিদেশি জাহাজকে বন্দরে ভিড়তে বারণ করেছিল চিন। ফলে প্রায় ৪০ জন নাবিক আটকে পড়েছিলেন। যদিও চিনের তরফে সরকারিভাবে এই নিষেধাজ্ঞা নিয়ে কিছু জানান হয়নি।

এদিকে বিদেশ মন্ত্রকে যোগাযোগ করা হলে ডিজি (শিপিং) অমিতাভ কুমার বলেন যে আমরা কোনও সরকারের তরফে অফিসিয়াল কোনও বিবৃতি পাইনি৷ অন্যদিকে মন্ত্রক জানায় তারা এমন কোনও চিঠি পায়নি।

 

এদিকে এই ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছে ইউনিয়ন। তাদের তরফে বন্দর, শিপিং এবং জল পরিবহন মন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোওয়ালকে চিঠি দেওয়া হয়৷ যেখানে বলা হয়েছে এই বিষয়ে বিদেশ মন্ত্রকের হস্তক্ষেপ দাবি করছে তারা। চিনের এই আনঅফিসিয়াল ‘নিষেধাজ্ঞায়’ প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে প্রায় ২১ হাজার কর্মীরা চাকরি খোয়াতে বসেছেন। কঠোর সিদ্ধান্ত নিলে সি জিংপিং সরকার।

আরো পড়ুন