যশোরে নির্বাচনী সহিংসতায় নৌকা প্রতীকের কর্মীর মৃত্যু

নিলয় ধর, যশোর প্রতিনিধি :-

যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলার চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতায় খালেদুর রহমান টিটো নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। তিনি আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ভিক্টোরিয়া পারভীন সাথীর কর্মী ছিলেন।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত টিটো বাঘারপাড়া উপজেলার জহুরপুর ইউনিয়নের বেতালপাড়া গ্রামের মুন্তাজ উদ্দিনের ছেলে।

বুধবার(৯ ডিসেম্বর)রাত সাড়ে ৮টার দিকে বেতলাপাড়া গ্রামে হামলায় গুরুতর জখম হন তিনি। তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) তৌহিদুল ইসলাম।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে বাঘারপাড়ার জহুরপুর ইউনিয়নের বেতালপাড়া গ্রামে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ভিক্টোরিয়া পারভীন সাথীর সামর্থক খালিদুর রহমান টিটোকে কুপিয়ে গুরুতর রক্তাক্ত জখম করেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী দীন মোহাম্মদ দিলু পাটোয়ারীর সমর্থকরা।

স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হাওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

এদিকে বৃহস্পতিবার যশোর সদর উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে।

সদর উপজেলা পরিষদের সংরক্ষিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে প্রার্থীরা হলেন অ্যাডভোকেট সেতারা খাতুন হাঁস প্রতীক ও জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জ্যোৎস্না আরা মিলি কলস প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ভিক্টোরিয়া পারভিন সাথী নৌকা প্রতীক ও বিএনপি মনোনীত প্রার্থী শামসুর রহমান ধানের শীষ এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী দীন মোহাম্মদ দিলু পাটোয়ারী আনারস প্রতীকে লড়াই করছেন।

এদিকে জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান জানিয়েছেন, সকাল থেকে শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ চলছে।

এছাড়া নির্বাচন শান্তিপূর্ণ করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সর্তকতার সাথে দায়িত্ব পালন করছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন।

আরো পড়ুন