মণিরামপুরে বিরোধপূর্ণ জমিতে ঘর নির্মাণ করাকে কেন্দ্র করে ইউপি সদস্যসহ আহত -৭

নূরুল হক, মণিরামপুর :
মণিরামপুরে পল্লীতে শরিকানা বিরোধপূর্ণ জমিতে ঘর নির্মাণকে কেন্দ্র মারামারিতে ইউপি সদস্যসহ উভয় পক্ষের ৭জন আহত হয়েছে। আহতদের মণিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার কাশিমনগর ইউনিয়নের সুন্দ্রা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, উপজেলার ২নং কাশিমনগর ইউনিয়নের ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক গংদের সাথে প্রতিপক্ষ ফজর আলী গংদের মধ্যে ৩৩৯ নং দাগে ৪৩ জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। ইউপি সদস্য রাজ্জাকসহ তার পক্ষের লোকজনদের দাবী উল্লেখিত জমির হাল রেকর্ডসহ তাদের দখলে রয়েছে। কিন্তু প্রতিপক্ষ ফজর আলীসহ তার পক্ষের লোকজনের দাবী ৬২ রেকর্ড অনুযায়ী ওই জমি তারা শরিক আনা সুত্রে মালিক এবং তাদের দখলে আছে। এ নিয়ে উভয় পক্ষের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে মামলা-মকদ্দমা চলে আসছে।

কিন্তু গত বুধবার ফজর আলী গংরাদের দখলে থাকা অংশে ফজল আলী বসতঘর তৈরি শুরু করলে। ঘটনার পরেরদিন বৃহস্পতিবার সকালে রাজ্জাক গংরা তাদের জমিতে ঘর তৈরির কারণ জানতে গেলে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উভয়ের মধ্যে সংঘর্ষে রূপ নেয়। এতে উভয় পক্ষের ৭জন আহত হয়। এদের মধ্যে ৫ জনের অবস্থা গুরুতর। আহতরা হলেন ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক (৫০), তার ভাই মারুফ হোসেন (৩৫), চাচাতো ভাই খবির উদ্দিন (২২) ও প্রতিপক্ষের ফজর আলী (৬০), তার ছেলে নাজিম (৩২)।
আহত ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক মোড়ল জানান, ওই জমির কোন বৈধ কাগজ তাদের নেই, তারা জোর পূর্বক জমি দখল করে বসতঘর তৈরি করছে। এ সকল বিষয় থানায় একটি অভিযোগ দেয়া হলে এ এস আই আব্দুর রহমান তা তদন্ত করছে। তিনি বিষয়টা ভাল বলতে পারবেন।
থানার এ এস আই আব্দুর রহমান জানান, অভিযোগের পর তাদের দুই পক্ষের কাগজ পত্র দেখা হয়েছে। এ বিষয়ে একটি শান্তিপূর্ন সমাধান করার চেষ্টা করছি।

নূরুল হক
মণিরামপুর, যশোর।
মোবাইলঃ ০১৭২১৩৯০২০৮
তারিখ-১৫/০৪/২০২১ইং

আরো পড়ুন