বেনাপোল বন্দরে ভারত-বাংলাদেশ খালি ট্রাক আদান প্রদান

নিলয় ধর,বেনাপোল (যশোর):

দীর্ঘ ৩ মাস ১৬ দিন পেট্রাপোল বন্দরে আটকা থাকা ৩৪টি বাংলাদেশি খালি ট্রাক আজ ফিরে এসেছে। একইভাবে বেনাপোল বন্দরে আটকা থাকা ১৪০টি ভারতীয় খালি ট্রাকগুলোও সেদেশে ফিরে যাচ্ছে। রবিবার সকালে ৩০ জন বাংলাদেশি ট্রাকচালক পিপিই, মাস্ক, হ্যান্ডগ্লাভস পরে স্বাস্থ্য বিধি মেনে ভারত সীমান্তে যান। সেখানে স্বাস্থ্য পরীক্ষা শেষে খালি ট্রাকগুলো চালিয়ে বেনাপোলে ফিরিয়ে আনে তারা। এই সব ট্রাক পণ্য নিয়ে ২২ মার্চের আগে ভারতে গিয়েছিল। সেখানে লকডাউনের কারণে খালি ট্রাকগুলো আটকা পড়লেও চালকরা বিশেষ ব্যবস্থায় দেশে ফিরে এসেছিলেন।

এর আগে বেনাপোল বন্দরে আটকে থাকা ভারতীয় প্রায় ১৪০টি খালি ট্রাক গত বৃহস্পতিবার(২৫ জুন) থেকে ফেরত নিয়ে যাচ্ছেন সেদেশের চালকরা। এই সব খালি ট্রাক বন্দর এলাকায় রেখে ভারতীয় চালকরা নিজ দেশে অবস্থান করছিলেন। আগামীকাল সোমবারের মধ্যে ভারতীয় সব ট্রাক ফিরে যাবে বলে বন্দর সূত্রে জানা গিয়েছে । বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দেওয়ায় গত (২৩ মার্চ) থেকে বেনাপোল-পেট্রাপোল বন্দর দিয়ে দুই দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে যায়। উভয় দেশের প্রশাসন ও ব্যবসায়ীরা কয়েক দফা বৈঠক হেেলও করোনা পরিস্থিতির কারণে খালি ট্রাক ফেরত আনতে বা পাঠাতে পারেননি। গত (৭ জুন) থেকে বেনাপোল-পেট্রাপোলের মধ্যে আবার বাণিজ্য শুরু হলেও এসব খালি ট্রাক আনতে পারেননি চালকরা। বেনাপোল সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান বলেছেন, ভারতীয় বন্দর ব্যবহারকারী বিভিন্ন সংগঠনের সঙ্গে একাধিকবার আলোচনা করেও বাংলাদেশি খালি ট্রাকগুলো ফেরত আনা যায়নি।

অবশেষে আজ বরিবার(২৮ জুন) সকালে খালি ট্রাকগুলো ফেরত আনার জন্য শনিবার বিকেলে আমাদের জানানো হয়। যাদের ট্রাক পেট্রাপোলে আটকে আছে তাদের বিষয়টি জানানোর পর আজ রোববার সকাল থেকে সেগুলো বাংলাদেশে ফেরত আসা শুরু হয়েছে। বেনপোল স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষের উপ-পরিচালক (ট্রাফিক) মামুন কবীর তরফদার জানিয়েছেন, করোনা পরিস্থিতিতে ভারত সরকারের লকডাউনের কারণে ২ দেশের বন্দরে বেশ কিছু খালি ট্রাক আটকে পড়ে। বৃহস্পতিবার, শনিবার ও রবিবার ভারতীয় অধিকাংশ খালি ট্রাক ফেরত গেছে। যে কয়টি বাকি আছে আগামীকাল সোমবারের মধ্যে সেগুলো তারা নিয়ে যাবেন। ভারতের পেট্রাপোলে বাংলাদেশি ৩৪টি খালি ট্রাক আজ রবিবার ফেরত আনা হয়েছে।

আরো পড়ুন