চেয়ারম্যানের নিজ উদ্দ্যোগে ফ্রী অক্সিজেন সেবা চালু

রণিকা বসু(মাধুরী)বিশেষ প্রতিনিধি:

চলমান মহামারী কোভিট- ১৯ প্রতিরোধে বাগেরহাট জেলার চিতলমারী উপজেলায় ব্যক্তি উদ্দ্যোগে ফ্রি অক্সিজেন সেবা চালু করা হয়েছে৷ এই উদ্যোগ নিয়েছেন উপজেলার ৭ নং সন্তোষপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সামিয়া রহমান বিউটি আক্তার। গত ১৪ জুলাই বুধবার দুপুর বেলা ১২টায় ইউনিয়ন পরিষদের সভা কক্ষে স্বল্প পরিসরে দুটি অক্সিজেন সিলিন্ডার, মেডিকেল মাস্ক, মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজারসহ প্রয়োজনীয় সরঞ্জামাদি ইউনিয়ন পরিষদের কর্তব্যরত সদস্য ও গ্রাম পুশিলের হাতে তুলে দেন। উল্লেখ্য তিনি মহামারী কোভিট-১৯ শুরু থেকে নানাধরণের সামাজিক উন্নয়ন ও সেবামূলক কাজ করে চলছেন৷ যেমন অসহায় দুস্থদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী সরবারহ, জনসচেতন মূলক প্রচারনা, নারী শিশুদের স্বাস্থ্য সচেতন ও খাদ্য সহায়তা৷ শেখ হেলাল উদ্দিন এমপির কোভিট-১৯ খাদ্য সহায়তা প্রদান কাজে অংশগ্রহনসহ বিভিন্ন কাজের সাথে সংযুক্ত থেকে মহামারী কোভিট-১৯ ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে থেকে কোডিট-১৯ প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছেন৷
চেয়ারম্যান সামিয়া রহমান বিউটি আক্তার বলেন, কোভিট-১৯ আক্রান্ত হয়ে অক্সিজেনের অভাবে কেউ মারা না যায় বা অক্সিজেনের কষ্ট না পায় সে জন্য আমি ব্যক্তিগত তহবিল থেকে দু’টি অক্সিজেন সিলিন্ডার এবং প্রয়োজনীয় সরঞ্জামাদি এবং মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার কিনেছি। যাদের অক্সিজেন প্রয়োজন হবে তারা বিনা মূল্যে এই অক্সিজেন গ্রহণ করতে পারবেন। প্রয়োজনের ফোন করে কেউ অক্সিজেনের কথা জানালে দ্রুততার সাথে পরিষদের নিজস্ব এ্যম্বুলেন্সে করে রোগীর বাড়ীতে সিলিন্ডার পৌছে দেয়া হবে। সিলিন্ডার ব্যবহারে ৭ নং সন্তোষপুর ইউনিয়নের বাসিন্দারা অগ্রাধিকার পাবে। তবে জরুরী দরকারে উপজেলার যে কেউ এ অক্সিজেন সেবা গ্রহণ করতে পারবে। ভবিষ্যতে আরো অক্সিজেন সিলিন্ডার সংগ্রহ করে সেবার জন্য মজুদ করা হবে।
চেয়ারম্যান আরো বলেন, আমার পরিষদের এ্যাম্বুলেন্সও ২৪ ঘন্টা রোগীর সেবার জন্য প্রস্তুত থাকে। স্বল্প খরচে এ সেবা উপজেলার যে কেউ গ্রহণ করতে পারে। এ্যাম্বুলেন্স ড্রাইভারের মোবাইল নাম্বার ০১৭০৭-০৮০৩৯৯। ৭ নং ইউনিয়নের কোন গরিব ও অসহায় মানুষ যেন খাদ্য,ও অক্সিজেনের অভাবে কষ্টে না থাকে তার জন্য এই কার্যক্রম চলমান থাকবে৷ ইউপি চেয়ারম্যানের এই কাজের জন্য এলাকাবাসী সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং তাকে ধন্যবাদ জানান৷

আরো পড়ুন