করোনায় মারা গেলেন এস আলম গ্রুপের পরিচালক মোরশেদুল আলম 

নিউজ ডেস্ক

করোনা রিপোর্ট পজেটিভ আসার ৫ দিনের মাথায় মৃত্যুর কাছে হার মানলেন দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্প প্রতিষ্ঠান এস আলম গ্রুপের পরিচালক মোরশেদুল আলম (৬২)। তিনি এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের পরিচালকের দায়িত্বও পালন করছিলেন। মোরশেদুল আলম এস আলম গ্রুপের চেয়ারম্যান সাইফুল আলম মাসুদের বড় ভাই৷

শুক্রবার (২২ মে) রাত দশটা ৫০ মিনিটের দিকে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. আব্দুর রউফ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, মোরশেদুল আলমের আগে থেকে হার্টে রিং লাগানো ছিল। তিনি গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায়imageজেনারেল হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি হন। শুক্রবার রাত ১০ টা ৫০ মিনিটে মারা যান।

এরআগে রবিবার (১৭ মে) চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজের ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় তার করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়। ১৬ মে মোরশেদুল আলমসহ তার পরিবারের ৬ সদস্য চমেক ল্যাবে নমুনা দেন। এস আলম গ্রুপের চেয়ারম্যান সাইফুল আলম মাসুদের পাঁচ ভাইসহ ও তার এক ভাইয়ের বউসহ মোট ৬ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। করোনায় মারা যাওয়া মোরশেদুল আলম ছাড়াও আক্রান্ত হয়েছিলেন, এস আলম গ্রুপের পরিচালক ৬০ বছর বয়সী রাশেদুল আলম, এস আলম গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান ৫৩ বছর বয়সী আবদুস সামাদ লাবু, ইউনিয়ন ব্যাংকের চেয়ারম্যান ও এস আলম গ্রুপের পরিচালক মোহাম্মদ শহীদুল আলম এবং এস আলম গ্রুপের পরিচালক ৪৫ বছর বয়সী ওসমান গণি। তাদের এক ভাইয়ের স্ত্রী ৩৬ বছর বয়সী ফারজানা পারভীন নামে এক নারী।

এদিকে চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য মতে, আজ শুক্রবার (২২ মে) পর্যন্ত চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যান মোট ৫০ জন।

আরো পড়ুন